সোনার তৈরি অদ্ভুত কিছু জিনিস

সোনার চেয়ে অনেক দামী দামী জিনিস সম্পর্কে আমরা সকলেই শুনেছি । কিন্তু সোনার প্রতি বরাবরই আমাদের একটু বেশি আকর্ষন আছে। তাইতো যখনই আমরা সোনার টয়লেট বা সোনার শার্ট বা সোনার তৈরি অন্য কিছুর কথা শুনি তখনই আমরা অবাক হয়ে যায় ।

১। গোল্ড পিলস (Gold Pill)

আপনি যদি আপনার টাট্টির রঙে খুশি না থাকেন তাহলে এই গোল্ড পিলস আপনার জন্য । যে গোল্ড পিলস খেয়ে আপনার টাট্টি সোনার মতন বের হবে । মানে আপনার নিতম্ব একটি সোনার খনিতে রূপান্তরিত হবে । এই একটি ক্যাপসুল এর দাম প্রায় ৩০ হাজার টাকা । যার মধ্যে ২৪ ক্যারটের গোল্ড ভর্তি করা আছে আর ক্যাপসুল এর উপরের পর্দাও সোনা দিয়েই তৈরি । বলে দেই এই ধরনের সোনার ক্যাপসুল খেলে কোন রকমের হেল্থ বেনিফিট পাওয়া যায় না ।

২। ২২ ক্যারেট গোল্ড টয়লেট পেপার (22K Gold Toilet Paper)

২২ ক্যারেট গোল্ড টয়লেট পেপার

মনে হয় যেসব মানুষের কাছে প্রচুর টাকা আছে তারা কেবল এটাই চিন্তা করে যে এইসব পয়সা কিভাবে খরচ করা যায় । আসলে এই কথাটি বলার কারণ হচ্ছে এই ২২ ক্যারেট গোল্ড টয়লেট পেপারটি দেখে । আসলে এই টয়লেট পেপারটি কি কাজে ইউজ করা হয় সেটা নিশ্চয়ই আপনারা সকলেই জানেন । কিন্তু কিছু ধনী ব্যক্তি আছেন যারা এখানেও নিজেদের শখ দেখাতে ছাড়েনি । হয়তো তারা চায় যে তাদের আত্মীয় স্বজন টয়লেটের ভিতর ও তার আলিশান জীবন দেখুক । আর এজন্যই ২০১৩ সালে একটি অস্ট্রেলিয়ান কোম্পানি টয়লেট পেপার ম্যান সোনা দিয়ে তৈরি টয়লেট পেপার তৈরি করেন । যার দাম তিনি রাখেন ১.৩ মিলিয়ন ডলার আর আশ্চর্যের কথা হল কিছু লোক এই পার্টি কিনতেও শুরু করে দেয় ।

 

৪। সোনার শার্ট (Gold Shirt)

সোনার শার্ট

ইনি হলেন মহারাষ্ট্রের নামকরা বিজনেসম্যান পঙ্কজ পারাক । যিনি ১ কোটি ৩০ লক্ষ টাকা দিয়ে একটি সোনার শার্ট তৈরি করেন । যে শার্ট পরে তিনি নিজের নাম গিনেস বুক অফ ওয়ার্ল্ড রেকর্ডসে নথিভূক্ত করিয়েছেন । এছাড়াও পুনের একজন বিজনেসম্যান দত্ত ফুগে এমনই একটি শার্ট তৈরি করেন । যিনি গোল্ডম্যান নামে পরিচিত । তার এই শার্টের দামও এক কোটির উপরে ছিল । যে শার্ট তৈরি করার জন্য ১৫ জন শ্রমিক টানা ১৫ দিন কাজ করেছিলেন । এই শার্টে শোনার সাথে সাথে বিভিন্ন প্রকারের হিরে-মতিও ব্যবহার করা হয়েছে । যদিও গোল্ডম্যান দত্ত ফুগে’কে জুলাই ২০১৬ সালে খুন করা হয় ।

৫। ২৪ ক্যারেট গোল্ড মাস্ক (24K Gold Mask)

বিভিন্ন রকমের ঘরেলু উপায় এবং বিভিন্ন ধরনের বিউটি ট্রিটমেন্টকে অবলম্বন করে সারা পৃথিবী জুড়ে মানুষ নিজেকে সুন্দর দেখার জন্য কত টাকায় বরবাদ করে সেটা হয়তো আমাদের ধারনার বাইরে । কিন্তু সুন্দর বা সুন্দরী দেখতে চাওয়া মানুষদের জন্য একটি এমন বিউটি ট্রিটমেন্টস আবিষ্কার করা হয়েছে যে ট্রিটমেন্টকে যে কোন লোক বহন করতে পারবে না । আর এটি হল ২৪ ক্যারেট গোল্ড মাস্ক । এই গোল্ড লাগানোর আগে স্ক্রীনকে ভালভাবে মাসাজ করে নেওয়া হয় যাতে গোল্ড মুখের লোম ছিদ্র দিয়ে ভিতরে প্রবেশ করতে পারে ।

তারপর কিছু সময়ের পরে এই ২৪ ক্যারেট গোল্ড মাস্ক মুখে লাগিয়ে শুকানোর জন্য রাখা হয় আর শেষে একটি বিশেষ ধরনের উপায়ে গল্ড মাস্ক দিয়ে মাসাজ করা হয় । এই গোল্ড মাস্ক দিয়ে বিউটি ট্রিটমেন্ট করার অনেক উপকারিতা আছে কিন্তু জেনে নিন যে একবার ২৪ ক্যারেট গোল্ড মাস্ক করার জন্য আপনাকে ৬০ থেকে ৭০ হাজার টাকা দিতে হবে ।

Leave a Comment