যে দেশে প্রত্যেক পুরুষ দুটি বিয়ে করে থাকে

কথায় আছে বিয়ের লাড্ডু খেলেও পস্তাতে হবে খাবার না খেলেও পস্তাতে হবে কিন্তু আজ আমি একটি এমন দেশ সম্পর্কে বলব যে দেশে আপনাকে একটা লাড্ডু নয় বর‌ং দুটো লাড্ডু খেতেই হবে আর যদি আপনি দুটো লাড্ডু খেতে না চান তাহলে আপনাকে যেতে হবে মামার বাড়ি মানে জেলে । সাধারনত আমাদের দেশে একজন পুরুষের একটি বিবাহ থাকার পর যদি তিনি দ্বিতীয় বিবাহ করে তাহলে সেটা আইনত ভাবে অপরাধ তবে ডির্ভোস দিয়ে দ্বিতীয় বিবাহ করতে পারেন আবার কিছু পশ্চিমী দেশে আপনি একের অধিক বিবাহ করতে পারেন তবে তাতে কোন বাধ্যতামূলক নেই কিন্তু আজ আমি আপনাদের যে দেশটি সম্পর্কে বলবো সেখানে আপনাকে দুটি বিবাহ করতেই হবে আর আপনি যদি দুটি বিবাই না করেন তাহলে আপনাকে জেলে যেতে হবে ।

পূর্ব আফ্রিকার দেশ এরিট্রিয়া । যেখানে একজন পুরুষের দুইটি বিবাহ করা বাধ্যতামূলক আর এটি আইনত ভাবেই স্বীকৃত । যদি কোনো পুরুষ বা তার প্রথম স্ত্রী ঐ ব্যক্তির দ্বিতীয় বিবাহের ক্ষেত্রে কোনো বাধা সৃষ্টি করে তাহলে তাদের জেলে যাওয়া অনিবার্য আর এই আইন কার্যকর করার পেছনে একটি মর্মান্তিক কাহিনী যুক্ত আছে । যুদ্ধের কারণে ১৯৫৮ থেকে ২০০০ সালের মধ্যে এই দেশের প্রচুর পুরুষ মারা যায় । যার ফলে এই দেশে মেয়েদের তুলনায় পুরুষদের সংখ্যা অনেক কম হয়ে যায় আর এজন্যই এখানকার সরকার এমন ধরনের অদ্ভুত আইন তৈরি করেছেন।

যদিও এই আইন বিশ্বের বিভিন্ন দেশে সমালোচনার মুখোমুখি হয়েছে কিন্তু এখানকার সরকার ঐ সব সমালোচনার কান না দিয়ে বিবাহ ক্ষেত্রে এই ধরনের আইন চালু করেছেন । এরিট্রিয়ার এই আইন সম্পর্কে আপনার কী মতামত এরিট্রিয়ার পরিস্থিতি হিসেবে সরকার কি ঠিক পদক্ষেপ নিয়েছে না ভুল আপনার কি মনে হয় আপনার মতামত কমেন্ট বক্সে অবশ্যই কমেন্ট করে জানাবেন

Leave a Comment