লাইফ স্টাইল

আপনার কাছে আপনার জীবনসঙ্গী কতটা স্পেশাল

দামি গিফট বা চকচকে রেঁস্তোরায় লাঞ্চ এসবের বাইরেও সম্পর্কে বেশ কিছু ছোটছোট দিক থাকে, বড় দিকগুলোকে নিয়ে অতিরিক্ত ভাবতে গিয়ে আমরা প্রায়ই এড়িয়ে যাই সেই দিকগুলো। এরপর তো কাজের চাপ, ব্যস্ততা আছেই।  সমস্ত সম্পর্কের জন্য সবচেয়ে জরুরি হল কমিউনিকেশন। আর কমিউনিকেশনের অন্যতম মাধ্যম কথা বলা। জমে থাকা না বলা কথাগুলো এবার শেয়ার করুন।

খেয়াল করুন এই দিকগুলো: 

প্রতি মিনিটে ফোন বা মেসেজে কথা হতে হবে এমন কোনও মানে নেই। সারাদিনের মধ্যে কিছুটা সময়ই  যথেষ্ট। মেসেজ নয়, ফোন করে জিজ্ঞাসা করুন তাঁর দিন কেমন গেল খোঁজ নিন কোনও সমস্যা হয়েছিল কিনা? তুমুল ঝগড়ার পর পাশে বসেই মেসেজে একটা সরি লিখে পাঠিয়ে দিন। সাহায্যের হাত বাড়ান ছোট ছোট কাজে। মাঝে মাঝেই জানিয়ে দিন আপনার সঙ্গী আপনার কাছে কতটা স্পেশাল। একটা সম্পর্কে এইটা অনেক গুরুত্ব রাখে।

আপনার সম্পর্ক চমৎকার করতে চান:

একজন ভাল শ্রোতা হয়ে উঠুন। আপনার নিজের মত বা যুক্তি চাপিয়ে দেবেন না। আপনার সঙ্গীর মতামতকে যদি গুরুত্ব দেন, তাহলেই আপনার কথাও তাঁর কাছে গুরুত্ব পাবে।এরকম বিষয় একটু নজর করে চললে শুধু নিজেদের মধ্যে কমিউনিকেশনই বাড়বে না বরং সম্পর্ক জোরালোও হবে। মাঝে মধ্যে সারপ্রাইজ ভিজিট দিয়ে চমকে দিন। যখন দূর থেকে হঠাৎ ই  আপনার সঙ্গীকে মিস করছেন, ফোন করুন বা মেসেজ করুন, জানান আপনার মিস করার কথা।

 

লিখেছেন   :  নিপু  ছবি ও তথ্য: ইন্টারনেট

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button